Saturday, April 13, 2024
Homeস্পটলাইটরাস্তা দখল করে ভুট্টা শুকানো, দুর্ঘটনার আশংকা

রাস্তা দখল করে ভুট্টা শুকানো, দুর্ঘটনার আশংকা

বগুড়া প্রতিনিধি: বগুড়ার শেরপুর-ধুনট আঞ্চলিক সড়কের শুবলি, শালফা ও বোয়ালকান্দি এলাকায় ভুট্টা ও ধান শুকানোর চাতালে পরিণত হয়েছে। এতে করে সড়কটি সংকুচিত হয়ে পড়েছে। বিষয়টি নিয়ে কোনো কার্যকর ব্যবস্থা না নেওয়ায় ােভ প্রকাশ করেছেন পথচারী ও যানবাহনের চালকরা। যেকোনো সময় মারাত্মক দুর্ঘটনা ঘটতে পারে বলে আশঙ্কা করছেন সচেতন ব্যক্তিরা।

শেরপুর উপজেলার খানপুর ইউনিয়নের শুবলি, শালফা ও বোয়ালকান্দি গ্রামের মধ্যে দিয়ে শেরপুর-ধুনট আঞ্চলিক সড়কটি সম্প্রতি প্রসস্থ করা হয়েছে। সেই সড়কের দুই পাশে ধান, খড় ও ভুট্টা শুকানোর হিড়িক দেখা গেছে। কৃষাণ-কৃষাণী থেকে শুরু করে ছোট ছেলে-মেয়েরা সবাই ব্যস্ত সেই কাজে। মহাসড়কের কোলঘেঁষা গ্রামের কৃষকরা এখন তাদের ধান, খড় ও ভুট্টা শুকানোর জন্য সড়কের বিভিন্ন স্থান দখলে নিয়েছে। এ কারণে সংকুচিত সড়কে নির্দিষ্ট গতিতে গাড়ি চালানো যাচ্ছে না। আবার ধান ও খড়ের ওপর দিয়ে যানবাহন চালানো ঝুঁকিপূর্ণ। যেকোনো সময় দুর্ঘটনাও ঘটতে পারে।

রবিউল ইসলাম নামের এক ট্রাকচালক বলেন, এই সড়কের নির্মাণকাজ চলমান থাকায় গতিবিধি নিয়ন্ত্রণ করে গাড়ি চালাতে হচ্ছে। এরপর যদি সড়কের কোথাও কোথাও ধান ও খড়ের স্তুপ থাকে, তাহলে তো আমাদের সমস্যা। হর্ন দিলেও শোনে না, হুট করে রাস্তা পারাপার হয়। অনেকে তো সড়ককে ধান ও ভুট্টা শুকানোর চাতালের মতো করে ব্যবহার করতে গিয়ে দুর্ঘটনার শিকার হন।

এ ব্যাপারে কয়েকজন কৃষানী বলেন, শিলাবৃষ্টিতে ধানের অনেক তি হয়েছে। তাই পুরোপুরিভাবে ধান পাকার আগেই কেটেছি। এ অবস্থায় যদি আবার বৃষ্টির মধ্যে পড়ি তাহলে এই ধানগুলো নষ্ট হয়ে যাবে। আমাদের বাড়িতে কোন জায়গা না থাকায় রাস্তার উপর তা শুকাতে দিয়েছি।

আরেকজন কৃষক বলেন, কয়েকদিন আগের বৃষ্টিতে আমার ভুট্টা ভিজে গিয়েছিল। ভেজা ভুট্টার দাম কম। আমার বাড়িতে বড় জায়গা না থাকায় সড়কের উপর শুকাচ্ছি। বিকেল হওয়ার আগেই নিয়ে যাব।

স্থানীয় সচেতন অনেকেই বলেন, পূর্বের তুলনায় শেরপুর-ধুনট আঞ্চলিক সড়ক দিয়ে এখন অনেক বড় বড় যানবাহন চলাচল করে। ধান ও ভুট্টার মৌসুমে সড়কটির বিভিন্ন অংশে ভুট্টা শুকানো, ধানমাড়াই ও খড় শুকানোর কাজে ব্যবহার করা হচ্ছে। এ কারণে কখনো কখনো ছোটখাটো দুর্ঘটনাও ঘটছে। এগুলো বন্ধ হওয়া দরকার।

এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোছা. সানজিদা সুলতানা বলেন, সড়ক দখল করে ভুট্টা, ধান ও খড় শুকানোর কোন নিয়ম নেই। আমি বিষয়টি খতিয়ে দেখছি।

RELATED ARTICLES

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular

Recent Comments